বুধবার, ২৪ জুলাই ২০২৪, ১১:৩৫ অপরাহ্ন

সেনেগালকে হারিয়ে নেদারল্যান্ডসের দুর্দান্ত সূচনা

ফোরাম প্রতিবেদক / ৯১ জন দেখেছেন
আপডেট : নভেম্বর ২২, ২০২২
সেনেগালকে হারিয়ে নেদারল্যান্ডসের দুর্দান্ত সূচনা
দর্শক ফোরামের সর্বশেষ খবর পেতে গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি অনুসরণ করুন

বিশ্বকাপের তৃতীয় ম্যাচে মুখোমুখি হয় সেনেগাল ও নেদারল্যান্ডস। দিনের দ্বিতীয় ম্যাচে শেষ মুহূর্তে গোল খেয়ে পরাজয় নিয়ে মাঠ ছাড়ল সাদিও মানেবিহীন সেনেগাল। ম্যাচের ৮৪তম মিনিটে গোলটি হজম করে তারা। এরপর অতিরিক্ত সময়ের নবম মিনিটে দ্বিতীয় গোল হজম করে সেনেগাল। শেষ পর্যন্ত ২-০ গোলে হারা তারা।

সোমবার রাতে কাতার বিশ্বকাপের ‘এ’ গ্রুপের ম্যাচে আল থুমামা স্টেডিয়ামে সেনেগালকে ২-০ ব্যবধানে হারায় নেদারল্যান্ডস। এই নিয়ে বিশ্বকাপের নয় আসরে নিজেদের প্রথম ম্যাচে জয় তুলে নেয় দলটি। ডাচদের হয়ে শেষমুহূর্তে গিয়ে গোল করে দলকে এগিয়ে নেন কোডি হাকপো। দ্বিতীয়ার্ধের যোগ করা সময়ে বাকি গোলটি করেন ডেভি ক্লাসেন।

আজ দিনের প্রথম ম্যাচে গোল উৎসব দেখেছে ফুটবল ভক্তরা। ইংল্যান্ড ও ইরানের মধ্যকার ম্যাচে হয়েছে ৮ গোল। তবে দ্বিতীয় ম্যাচে দেখা গেল তাঁর উল্টো চিত্র। সেনেগাল বনাম নেদারল্যান্ডসের মধ্যকার ম্যাচের প্রথমার্ধে জালের দেখা পায়নি কেউই। গোল শূন্য থেকেই বিরতিতে গেছে দুদল। বিরতির পরও গোল মিলছিল না। একেবারে শেষ দিকে এসে জালের দেখা পায় নেদারল্যান্ডস। তাতেই স্বস্তি নিয়ে মাঠ ছাড়তে পারে ডাচরা।

আল থুমামা স্টেডিয়ামে ম্যাচটিতে বলের দখলে এগিয়ে ছিল ডাচরা। ম্যাচের ৫৪ ভাগ সময় নিজেদের পায়ে রাখেন ডাচ ফুটবলাররা। বল দখলে এগিয়ে থাকলেও আক্রমণে আধিপত্য ছিল সেনেগালের। পুরো ম্যাচে সেনেগাল শিবিরে ১০ বার আক্রমণ করে নেদারল্যান্ডস। বিপরীতে ১৫বার আক্রমণে যায় সেনেগাল। যার মধ্যে ৪টি ছিল অনটার্গেট শট। কিন্তু একটিও ডাচদের রক্ষণ ভাঙতে পারেনি।

ম্যাচের প্রথমার্ধে দুলের লড়াই চলে সমানে-সমান। কেউই কাউকে ছাড় দেয়নি। কিন্তু জালের দেখা পায়নি কেউই। ম্যাচের ৮৪ মিনিটে এসে সেনেগালকে স্তব্ধ করে এগিয়ে যায় নেদারল্যান্ডস। ডি বক্সে ডি জংয়ের পাস পেয়ে মিস করেননি কডি গাকপো। কোনাকুনি দারুণ হেডে গোল করে ব্যবধান গড়ে দেন তিনি।

শেষ দিকে যোগ করা সময়ে আরেকটি গোল করে নেদারল্যান্ডসকে ম্যাচ হাতের মুঠোয় এনে দেন ক্লাসেন। তাতে বিশ্বকাপে নিজেদের প্রথম ম্যাচে গুরুত্বপূর্ণ ৩ পয়েন্ট পেল নেদারল্যান্ডস। অন্যদিকে দারুণ ফুটবল খেলেও হতাশা নিয়ে মাঠ ছাড়ল সেনেগাল।

সেনেগালের বিপক্ষে ম্যাচটিতে নেদারল্যান্ডসই পরিস্কারভাবে ফেভারিট হিসাবে ছিল। পরিসংখ্যান-পারফর্ম অন্তত সেটাই বলে। তবে সেনেগালও যে ছাড় দেবার মতো নয় সেটা পুরো ম্যাচে দেখিয়েছে তারা।

বিশ্বকাপে কখনো শিরোপার দেখা পায়নি নেদারল্যান্ডস। ফুটবল বিশ্বকাপের ইতিহাসে নেদারল্যান্ডসেই একমাত্র দল যারা তিন-তিনবার ফাইনালে উঠেও শিরোপা জিততে পারেনি। অন্যদিকে সেনেগাল ফাইনালে কখনো উঠতে পারেনি। নক আউট পর্বে খেলতে পারে কেবল একবার।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

এ বিভাগের আরো খবর

২১ জুন-23 অ্যাওয়ার্ড অনুষ্ঠান