সোমবার, ২০ মে ২০২৪, ১১:৫৪ অপরাহ্ন

ফ্যাশনেবল সাজপোশাকে জয়া আহসান

ফোরাম প্রতিবেদক / ৬২ জন দেখেছেন
আপডেট : ডিসেম্বর ৪, ২০২২
ফ্যাশনেবল সাজপোশাকে জয়া আহসান
দর্শক ফোরামের সর্বশেষ খবর পেতে গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি অনুসরণ করুন

‘জয়া আহসান’ নামটি কারও অপরিচিত না। এপার বাংলা এবং ওপার বাংলার পড়পর্দার একজন নিয়মিত অভিনেত্রী। যিনি নিজের অভিনয় যোগ্যতা দিয়ে জয় করেছেন কোটি দর্শক ভক্তদের মন।

বাংলাদেশি এই অভিনেত্রীর আর এক নাম জয়া মাসউদ। অভিনয়ের স্বীকৃতি হিসেবে তিনি চারবার অর্জন করেছেন জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার। ছয়বার জিতেছেন মেরিল-প্রথম আলো পুরস্কার। এছাড়া তিনি তিনবার অর্জন করেছেন ফিল্মফেয়ার পুরস্কার। এছাড়া আরও অসংখ্য পুরস্কার অর্জন করেছেন এই অভিনেত্রী।

মুক্তিযোদ্ধা এ এস মাসউদ এবং স্কুল শিক্ষক রেহানা মাসউদ দম্পতির কোল আলো করে গোপালগঞ্জে জন্ম গ্রহণ করেন এই গুণী অভিনেত্রী। জয়া ছাড়াও তার আরও একটি ভাই এবং বোন আছে। ছোটবেলা থেকে প্রাতিষ্ঠানিক লেখাপড়ার পাশাপাশি জয়া ছবি আঁকাও শিখেছেন। এছাড়া জয়া একটি সঙ্গীতের স্কুলও পরিচালনা করেন।

২০০৪ সালে মোস্তফা সরয়ার ফারুকীর ব্যাচেলর চলচ্চিত্রের মাধ্যমে জয়ার চলচ্চিত্রে অভিষেক হয়। এর প্রায় ছয় বছর পর নুরুল আলম আতিক পরিচালিত ডুবসাঁতার চলচ্চিত্রে অভিনয় করেন। ২০১১ সালে তানিম নূর পরিচালিত ফিরে এসো বেহুলা এবং নাসির উদ্দীন ইউসুফ পরিচালিত গেরিলা চলচ্চিত্রে অভিনয় করেন। গেরিলা চলচ্চিত্রের সাফল্যের পর থেকে তিনি নিয়মিত বাংলাদেশ ও ভারতের কলকাতার চলচ্চিত্রে কাজ করা শুরু করেন। ২০১২ সালে রেদওয়ান রনি পরিচালিত চোরাবালিতে একজন সাংবাদিকের চরিত্রে অভিনয় করেন।

জয়া আহসান ২০১৩ সালে কান চলচ্চিত্র উৎসব থেকে নিমন্ত্রণ পান। একই বছর তিনি অভিনয় করেন কলকাতার অরিন্দম শীল পরিচালিত আবর্ত ছায়াছবিতে। এতে তার বিপরীতে অভিনয় করেন আবীর চ্যাটার্জি। এই চলচ্চিত্রে অভিনয়ের জন্য তিনি ফিল্মফেয়ার পুরস্কার শ্রেষ্ঠ নবীন অভিনেত্রী হিসেবে মনোনয়ন পান। একই বছর বাংলাদেশের সাফি উদ্দিন সাফি পরিচালিত রোমান্টিক ছায়াছবি পূর্ণদৈর্ঘ্য প্রেম কাহিনীতে অভিনয় করেন। এতে প্রথমবারের মত বিপরীতে অভিনয় করেন শাকিব খান।

২০১৫ সালে অভিনয় করেন বাংলাদেশের অনিমেষ আইচ পরিচালিত মনস্তাত্ত্বিক-থ্রিলারধর্মী জিরো ডিগ্রী ছবিতে। এতে তার বিপরীতে অভিনয় করেন মাহফুজ আহমেদ। চলচ্চিত্রটি ব্যবসাসফল না হলেও জয়ার অভিনয় প্রশংসিত হয় এবং তিনি মেরিল-প্রথম আলো পুরস্কার-এ সমালোচকদের বিচারে শ্রেষ্ঠ নারী চলচ্চিত্র অভিনয়শিল্পী বিভাগে মনোনীত হন।

২০১৭ সালে প্রদত্ত ৪০তম জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কারে শ্রেষ্ঠ অভিনেত্রীর পুরস্কার লাভ করেন। একই বছর কলকাতার ইন্দ্রনীল রায় চৌধুরী পরিচালিত একটি বাঙালি ভূতের গপ্পো ও সৃজিত মুখোপাধ্যায় পরিচালিত ১৯৪৭ সালের দেশবিভাগ নিয়ে নির্মিত রাজকাহিনী ছবিতে অভিনয় করেন।

এই চলচ্চিত্রে যৌবনাশ্রিত ও আপত্তিকর দৃশ্যে অভিনয় করে তিনি সমালোচিত হয়েছেন। রাজকাহিনী ছায়াছবিতে অভিনয়ের জন্য ১৬তম টেলি সিনে পুরস্কারে শ্রেষ্ঠ পার্শ্বচরিত্রে অভিনেত্রীর পুরস্কার অর্জন করেন।

২০১৬ সালে মুক্তি পায় সাফি উদ্দিন সাফি পরিচালিত পূর্ণদৈর্ঘ্য প্রেম কাহিনি ২। এটি ২০১৩ সালে মুক্তিপ্রাপ্ত পূর্ণদৈর্ঘ্য প্রেম কাহিনীর সিক্যুয়াল। এতে অভিনয়ের জন্য তিনি চতুর্থবারের মত শ্রেষ্ঠ চলচ্চিত্র অভিনেত্রী বিভাগে মেরিল-প্রথম আলো পুরস্কারের মনোনয়ন লাভ করেন।

২০১৮ সালের জানুয়ারিতে মুক্তি পায় তার অভিনীত পুত্র। সাইফুল ইসলাম মান্নু পরিচালিত এই ছবিতে একজন অটিস্টিক শিশুর মায়ের ভূমিকায় অভিনয় করেন। আগস্ট মাসে বিরসা দাশগুপ্ত পরিচালিত নারীবাদী চলচ্চিত্র ক্রিসক্রস মুক্তি পায়। ছবিটিতে তিনি কর্মজীবনে সফল, কিন্তু ব্যক্তিগত জীবনে একা এক নারীর চরিত্রে অভিনয় করেন।

জয়া তার অভিনয়ের পাশাপাশি তার ফ্যাশনেবল সাজপোশাকের কারণে আলোচনায় থাকেন। শাড়ি থেকে শুরু করে ওয়েস্টার্ন, সব পোশাকেই তিনি মানিয়ে যান।

বিভিন্ন সময়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে তিনি নিজের অনেক তথ্য শেয়ার করেন। একই সাথে শেয়ার দেন বিভিন্ন সময়ে তোলা নান্দনিক ছবি। সেসব ছবিতে নেটিজেনদের প্রশংসায় ভাসেন জয়া।

খোলামেলা পোশাক পরার কারণে অনেক নেতিবাচক কমেন্টও করেন অনেকেই। তবে সেসবকে পাত্তা দেন না তিনি।

বিভিন্ন রঙ-ঢঙের পোশাকের পাশাপাশি তিনি প্রাণীপ্রেমী একজন মানুষ। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে প্রাণিদের অধিকার আদায়ে সরবও থাকেন তিনি।

The short URL of the present article is: https://tvforumbd.com/898p


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

এ বিভাগের আরো খবর

২১ জুন-23 অ্যাওয়ার্ড অনুষ্ঠান